কলামিস্টদের নাম
তারেক শামসুর রেহমান এর কলামগুলো

আস্থার জায়গাটা কি আবার ফিরে আসছে
মুক্তধারা
কালের কণ্ঠ
২৫ মার্চ, ২০১৩
রাষ্ট্রপতি মো. জিল্লুর রহমানের মৃত্যুর পর প্রধান বিরোধী দল বিএনপির ভূমিকা একটি প্রশ্নই সামনে নিয়ে এসেছে; আর তা হচ্ছে, আস্থার জায়গাটা কি আবার ফিরে আসছে? খালেদা জিয়া নিজে এবং দলের শীর্ষস্থানীয় নেতাদের সঙ্গে করে বঙ্গভবনে গেছেন, শোকবইতে স্বাক্ষর করেছেন। বিএনপি তিন দিনের শোক পালন করেছে। খালেদা জিয়ার পূর্বঘোষিত কর্মসূচি পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে। দলীয় পতাকা অর্ধনমিত রাখা হয়েছে। একজন রাষ্ট্রপতি, যিনি মহাজোট সরকার কর্তৃক নির্বাচিত হয়েছেন, তাঁর প্রতি বিএনপির এই শ্রদ্ধাবোধ নতুন প্রশ্নের জন্ম দিয়েছে। অথচ এক সপ্তাহ আগেও পরিস্থিতি ...
২০১৩ : আন্তর্জাতিক রাজনীতি
উপ-সম্পাদকীয়
কালের কণ্ঠ
২ জানুয়ারি, ২০১৩
আন্তর্জাতিক রাজনীতিতে অনেক ঘটনা ও অঘটনের মধ্য দিয়ে ২০১২ সাল পার হলো। কেমন হবে ২০১৩ সাল? ২০১২ সালের যে পরিবর্তনগুলো লক্ষ করেছিলাম, তার ধারাবাহিকতায় কি কোনো বড় ধরনের পরিবর্তন আমরা প্রত্যক্ষ করব? এটা বলার অপেক্ষা রাখে না যে ২০১২ সালের কোনো কোনো ঘটনা ২০১৩ সালের রাজনীতিতেও কিছুটা হলেও প্রভাব ফেলবে। প্রথমেই বলতে হয়, মিসরের ঘটনাবলির কথা। ২০১১ সালের 'আরব বসন্ত' ৩০ বছরের ক্ষমতায় থাকা হোসনি মুবারককে উৎখাত করেছিল। আরব বসন্ত মিসরে একটি গণতান্ত্রিক সংস্কৃতি বিকশিত হওয়ার সম্ভাবনার জন্ম দিলেও, ...
একুশ শতকে একজন সমাজতন্ত্রীর বিদায়
মুক্তধারা
কালের কণ্ঠ
১১ মার্চ, ২০১৩
তিনি ছিলেন একজন স্বপ্নের জাদুকর। হুগো শাভেজ। এখন প্রয়াত। একুশ শতকের বিপ্লবী। একুশ শতকের সমাজতন্ত্রী। সোভিয়েত ইউনিয়নের পতনের পর বিশ্বজুড়ে যখন একের পর এক সমাজতান্ত্রিক সরকারের পতন ঘটেছিল, তখন হুগো শাভেজ জন্ম দিয়েছিলেন এক নতুন ধরনের সমাজতন্ত্রের। রাষ্ট্রীয় সম্পদ ব্যবহার করে কিভাবে সাধারণ মানুষের জীবনযাত্রার মানের উন্নতি করা যায়। ভেনিজুয়েলা এর বড় প্রমাণ। হুগো শাভেজ মার্কসবাদী ছিলেন না। কিন্তু মার্কসবাদের মূল স্পিরিটকে তিনি ধারণ করেছিলেন। নিঃসন্দেহে তাঁর এই সমাজতান্ত্রিক চিন্তা-চেতনার সঙ্গে মার্কসবাদী রাষ্ট্রের যথেষ্ট পার্থক্য ছিল। এমনকি চীন 'সমাজতান্ত্রিক ...
হরতালের রাজনীতিতে বাংলাদেশ
উপ-সম্পাদকীয়
কালের কণ্ঠ
১৯ ডিসেম্বর, ২০১২
এক সপ্তাহের মধ্যে দু-দুটো হরতাল প্রত্যক্ষ করল বাংলাদেশ। ১১ ডিসেম্বর ছিল সকাল-সন্ধ্যা হরতাল আর ১৩ ডিসেম্বর আধা বেলা। এর আগে ৯ ডিসেম্বর ছিল অবরোধ। ওই অবরোধ অনেকটা হরতালের মতোই পালিত হয়েছিল। ধারণা করছি, বিএনপি তথা ১৮ দল সরকারের ওপর 'চাপ' সৃষ্টি করার লক্ষ্যে হরতালের মতো কর্মসূচি আরো দিতে পারে। খালেদা জিয়া সে রকমই ইঙ্গিত দিয়েছেন। এতে করে কি সরকার বিরোধী দলের দাবি মেনে নেবে? কোন পরিস্থিতির দিকে আমরা ধীরে ধীরে এগিয়ে যাচ্ছি? অবরোধের সময় বিশ্বজিৎ মারা গেলেন। বলা যেতে ...
বহির্বিশ্বে আমাদের ভাবমূর্তি
মুক্তধারা
কালের কণ্ঠ
৬ ডিসেম্বর, ২০১২
আশুলিয়ার নিশ্চিন্তপুরের তাজরীন ফ্যাশনের অগ্নিকাণ্ড এবং ১১১ জন শ্রমিকের মৃত্যুতে আমাদের পোশাকশিল্প শুধু যে অনিশ্চয়তার মুখেই থাকল, তা নয়; বরং বিদেশে আমাদের ভাবমূর্তিও নষ্ট হলো। বিশ্বে তৈরি পোশাকে বাংলাদেশের অবস্থান দ্বিতীয়। চীন প্রথম হলেও চীনে শ্রমিক মজুরি বাড়ছে এবং চীন এখন আর তৈরি পোশাকে উৎসাহিত হচ্ছে না। চীন এখন আইটি তথা মাঝারি শিল্পে মনোনিবেশ করছে। এমনকি এমন খবরও সংবাদপত্রে ছাপা হয়েছিল যে চীন তার পোশাক শিল্প বাংলাদেশে স্থানান্তর করতে পারে। এখন নিশ্চিন্তপুরের 'হত্যাকাণ্ড' পুরো শিল্পকে একটি ঝুঁকির মুখে ঠেলে ...
খালেদা জিয়ার অভিযোগ প্রসঙ্গে দুটি কথা
উপ-সম্পাদকীয়
কালের কণ্ঠ
২৭ নভেম্বর, ২০১২
খালেদা জিয়া সম্প্রতি অভিযোগ করেছেন যে দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনে সম্পৃক্ত করতে সরকার জামায়াতে ইসলামীকে পক্ষে আনার চেষ্টা চালাচ্ছে। ওই সভায় জামায়াতে ইসলামী চট্টগ্রাম মহানগর আমির শামসুল ইসলাম এমপিও বক্তৃতা করেন। খালেদা জিয়া প্রশ্ন রাখেন, জামায়াতে ইসলামীর সঙ্গে তলে তলে সরকারের কোনো সম্পর্ক আছে কি না সে ব্যাপারে তিনি নিশ্চিত নন। আমরা যাঁরা রাজনীতির গতি-প্রকৃতি নিয়ে লেখালেখি করি, তাঁদের কাছে খালেদা জিয়ার এই মন্তব্য বেশ গুরুত্বপূর্ণ। খালেদা জিয়ার এই মন্তব্যের পাশাপাশি ইদানীং ছাত্রশিবিরের কর্মকাণ্ডের সচিত্র প্রতিবেদন সংবাদপত্রে প্রায় প্রতিদিনই ...
প্রণব মুখোপাধ্যায়ের সফর ও আমাদের বৈদেশিক নীতি
মুক্তধারা
কালের কণ্ঠ
৩ মার্চ, ২০১৩
ভারতের রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায় ঢাকায় আসছেন আজ। বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধে অসামান্য অবদানের স্বীকৃতিস্বরূপ বাংলাদেশ তাঁকে বিশেষ সম্মানে ভূষিত করেছে। আর এ সম্মাননা নিতেই ভারতের রাষ্ট্রপতির বাংলাদেশে আসা। ভারতের রাষ্ট্রপতি সাংবিধানিকভাবে রাষ্ট্রীয় নীতি প্রণয়নে কোনো গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন না। কিন্তু প্রণব মুখোপাধ্যায় বলে কথা। একজন দক্ষ মন্ত্রী হিসেবে তিনি অতীতে বড় ভূমিকা রেখেছেন। বাংলাদেশের মানুষ তাঁকে একজন 'বন্ধু' হিসেবেই জানে। বাংলাদেশের ব্যাপারে তাঁর রয়েছে বিশেষ দরদ। তাই প্রণব মুখোপাধ্যায়ের বাংলাদেশে আসা দুই দেশের সম্পর্ককে যে একটি উচ্চতায় নিয়ে যাবে, তা বলার ...
বদলে যাওয়ার দিন
মুক্তধারা
কালের কণ্ঠ
২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৩
সেই কবে কবি হেলাল হাফিজ লিখেছিলেন, 'এখন যৌবন যার, যুদ্ধে যাবার তার শ্রেষ্ঠ সময়।' তারপর বুড়িগঙ্গায় অনেক পানি বয়ে গেছে। সরকার এসেছে। গেছে। কিন্তু পরিবর্তন হয়েছে সামান্যই। ভাষার মাসে সারা বিশ্ব বাংলাদেশকে দেখল এক ভিন্ন বাংলাদেশকে। ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধ সারা জাতিকে একত্র করেছিল। গুটিকয়েক স্বাধীনতাবিরোধী বাদে সারা জাতি এক পতাকাতলে একত্র হয়েছিল- স্বাধীনতা। আজ ৪২ বছর পর বিশ্ব দেখছে এক 'দ্বিতীয় মুক্তিযুদ্ধ'। দিনের পর দিন শাহবাগের প্রজন্ম চত্বরে অবস্থান করে তারা যে ইতিহাস রচনা করল, সেই ইতিহাসকে হালকাভাবে নেওয়ার ...
পদ্মা সেতু আশীর্বাদ না অভিশাপ
মুক্তধারা
কালের কণ্ঠ
১০ ফেব্রুয়ারি ২০১৩
কথাটা শুনতে খারাপই শোনায়। যে পদ্মা সেতু নিয়ে আমাদের এত গর্ব, সেই পদ্মা সেতু কী শেষ পর্যন্ত আমাদের জন্য আশীর্বাদ না অভিশাপ হয়ে দেখা দেবে? পদ্মা সেতু আমাদের অর্থনীতিতে বড় ধরনের অবদান রাখবে, দেশের দক্ষিণাঞ্চলের চেহারা আমূল বদলে দেবে, দারিদ্র্য দূরীকরণে পালন করবে একটি বড় ভূমিকা- এ কথাগুলোই আমরা এত দিন শুনে আসছিলাম। এর মধ্যে কোনো মিথ্যা ছিল না। কিন্তু এখন? দুর্নীতির বিরুদ্ধে দৃঢ় অবস্থান এবং অর্থায়নে দীর্ঘসূত্রতার কারণে শেষ পর্যন্ত বাংলাদেশ বিশ্বব্যাংককে 'না' করে দিল। সম্ভবত এটা ছাড়া ...
রাষ্ট্রদূত মজিনা বলেছেন
জন কেরি পররাষ্ট্রমন্ত্রী হলে ঢাকার ব্যাপারে নীতি বদলাবে না
উপ-সম্পাদকীয়
কালের কণ্ঠ
১৪ জানুয়ারি, ২০১৩
সিনেটর জন কেরি যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রী হলে বাংলাদেশের ব্যাপারে দেশটির নীতি বদলাবে না বলে আশ্বাস দিয়েছেন ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত ড্যান ডাব্লিউ মজিনা। গতকাল রবিবার সকালে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডা. দীপু মনির সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতের পর সাংবাদিকদের এ কথা জানান। সম্প্রতি প্রেসিডেন্ট ওবামা সিনেটের পররাষ্ট্রবিষয়ক কমিটির সভাপতি জন কেরিকে নতুন পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিসেবে মনোনয়ন দিয়েছেন। গতকাল ঢাকায় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে রাষ্ট্রদূত মজিনার কাছে জানতে চাওয়া হয়, তিনি আগামী নির্বাচন নিয়ে সৃষ্ট সংকট সমাধানে মধ্যস্থতা করছেন কি না। জবাবে তিনি বলেন, বাংলাদেশের জনগণই নির্ধারণ করবে আগামী নির্বাচন কোন পদ্ধতিতে হবে। যুক্তরাষ্ট্র চায়, বাংলাদেশে গণতন্ত্রের ধারাবাহিকতা বজায় থাকুক। সব দলের অংশগ্রহণে অবাধ, সুষ্ঠু, সুন্দর নির্বাচন অনুষ্ঠিত হোক। এদিকে দুপুরে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে সংবাদ সম্মেলনে প্রশ্নোত্তর পর্বে সাংবাদিকরা যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূতের সাক্ষাৎ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেন, 'যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বাংলাদেশের সম্পর্ক ব্যাপক। সেই বিভিন্ন ক্ষেত্র নিয়ে যে কাজগুলো হচ্ছে সেগুলো নিয়ে কথাবার্তা হয়েছে। বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সুরক্ষার কাঠামো চুক্তির (টিকফা) বিষয়টি আজ আলোচিত হয়নি।' ...
কোন পথে পার্বত্য চট্টগ্রাম
উপ-সম্পাদকীয়
যায়যায়দিন
১ ডিসেম্বর, ২০১২
আগামী ২ ডিসেম্বর পার্বত্য শান্তি চুক্তি স্বাক্ষরের ১৫ বছর পার করবে। এই পনের বছরে সেখানে অগ্রগতি হয়েছে কতটুকু? কতটুকু শান্তি সেখানে নিশ্চিত হয়েছে? এসব বিষয় আজ ভেবে দেখার পালা। ১৯৯৭ সালের ২ ডিসেম্বর যখন শান্তি চুক্তিটি স্বাক্ষরিত হয়েছিল, সেটা ছিল একটা বড় ধরনের অগ্রগতি। বিদ্রোহী 'চাকমা'দের মূল ধারায় ফিরিয়ে নিয়ে আসা ও বাঙালি ও পাহাড়িরা একসাথে মিলে মিশে একটি সমৃদ্ধশালী বাংলাদেশ গড়ে তোলা এই ছিল উদ্দেশ্য। কিন্তু হিসাব-নিকাশ মেলান যাক। সাধারণ পাহাড়িরা বাঙালিদের সাথে মিলে মিশে থাকলেও পাহাড়ি নেতৃত্ব, বিশেষ করে চাকমা নেতৃত্বের কারণে সরকারের উদ্যোগ বারবার নষ্ট হচ্ছে। পাহাড়ি নেতারা পাহাড়ে আদৌ বাংলাদেশের অস্তিত্ব বিশ্বাস করেন কিনা, সে ব্যাপারে আমার যথেষ্ট সন্দেহ রয়েছে। বিদ্রোহী চাকমাদের পুনর্বাসন, চাকরি, চাকমা নেতাকে প্রতিমন্ত্রীর মর্যাদা দেয়া স্থানীয় সরকারের আওতাধীন বেশ কিছু মন্ত্রণালয় তিন পার্বত্য জেলা পরিষদের হাতে হস্তান্তর কিংবা বেশ কিছু সেনা ক্যাম্প প্রত্যাহার করে নেয়ার পরও পার্বত্য নেতারা, বিশেষ করে চাকমা নেতারা এখনও উস্কানিমূলক বক্তব্য দিয়ে আসছেন। পার্বত্য চট্টগ্রামে বিদ্রোহী নেতা ...

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত অনলাইন ঢাকা গাইড -২০১৩